প্রেসিডেন্টের অপেক্ষায় হেয়াইট হাউজে কি রয়েছে?

ডেস্ক রিপোর্ট
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  11:17 PM, 08 November 2020

হোয়াইট হাউজ। নামটি শুনলেই মনে পড়ে বিশ্বমোড়ল বাঘা সব মার্কিন প্রেসিডেন্টের কথা। যুক্তরাষ্ট্রের ওয়াশিংটন ডিসিতে রয়েছে হোয়াইট হাউস। ধবধবে সাদা এ বাড়িটি একই সঙ্গে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্টের অফিস ও তার পরিবারের বাসস্থান। এই ভবনটির সঙ্গে জড়িয়ে রয়েছে দেশটির রাজনীতি, ইতিহাস এমনটি ঐতিহ্য। যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিটি রাজনৈতিক দলের প্রত্যাশার ঊর্ধ্বে হোয়াইট হাউস। ফলে চার বছর পরপর নির্বাচন এলেই বেজে ওঠে যুদ্ধের দামামা।

জেনে নিন হোয়াইট হাউসের প্রেসিডেন্টের জন্য কি কি বরাদ্দ থাকে। কেনই বা এসব বিষয় নিয়ে মানুষের মধ্যে কৌতূহল দেখা দেয়?

মার্কিন প্রেসিডেন্টের সরকারি বাসভবন হোয়াইট হাউস। বাড়ির মাপ সুবিশাল। ৫৫ হাজার বর্গফুটের ওপর ৬ তলা এই বির্ল্ডিং। হোয়াইট হাউসে ১৩টি ঘর। ৩৫টি টয়লেট রয়ছে। এ ছাড়া অসংখ্য ফায়ারপ্লেস,  সিনেমাহল, জগিং ট্রাক, সুইমিং পুলও রয়েছে।

আমেরিকার প্রেসিডেন্ট বার্ষিক ৪ লাখ ডলার বেতন পান। এছাড়া রয়েছে ৯ হাজার ডলারের বিনোদন ভাতা। অন্যান্য খরচ বাবদ ৫০ হাজার ডলার। ভ্রমণভাতা ১ লাখ ডলার। বেতনের ওপর কর দিতে হলেও বাকি বরাদ্দতে কোনও কর দিতে হয় না। অবসরের পর মার্কিন প্রেসিডেন্ট বছরে ২ লাখ ডলার পেনশন পান। তার মৃত্যুর পর স্ত্রী বার্ষিক ১ লাখ ডলার পান।
প্রেসিডেন্টের গাড়ির নাম গোটা দুনিয়া জানে। সেটি হলো ত্য বিস্ট। এই লিমুজিনের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নিয়ে কোনও রকম সন্দেহের অবকাশ নেই। এতে রয়েছে পাঁচ স্তরীয় কাঁচ, পলিকার্বনেটের জানলা। এই গাড়িকে গুলি থেকে রাসায়নিক অস্ত্র কোনও কিছু কাবু করতে পারে না। গাড়ির ভিতর আলাদা করে অক্সিজেন জোগানোর ব্যবস্থা রয়েছে। রয়ছে অগ্নি নির্বাপন ব্যবস্থা।

ব্লেয়ার হাউস, হোয়াইট হাউসের থেকেও আকারে বড়। এটাও বরাদ্ধ থাকে মার্কিন প্রেসিডেন্টের জন্য। এই বাড়ির আয়তন ৭০ হাজার বর্গফুট। মেরিল্যান্ডের পার্বত্য এলাকায় ১২৮ একর জায়গায় এটা বিশ্রামের প্রকৃতির বাড়ি। এটাও প্রেসিডেন্টরা পান।

মার্কিন প্রেসিডেন্টকে নিরাপত্তা দেওয়ার জন্য থাকে সিক্রেট ওয়ান সার্ভিস। ২৪ ঘণ্টাই তারা মার্কিন প্রেসিডেন্ট ও তার পরিবারকে সর্বোচ্চ নিরাপত্তা পরিষেবা বজায় রাখে।

মেরিন ওয়ান চপারেই যাতায়াত করে থাকেন আমেরিকার প্রেসিডেন্ট। দারুন এই চপারে নিরাপত্তা নিশ্ছিদ্র যে কোনও আক্রমণ প্রতিহত করতে পারে এই চপারটি।  চারটি চপার একসঙ্গে ওড়ে। ইঞ্জিন বিকল হলেও ১৫০ মাইল গতি প্রতিঘণ্টায় উড়তে পারে এই চপার।

মার্কিন বিমান পরিষেবা সেরা বিমান এয়ারফোর্স ওয়ান পান আমেরিকার প্রেসিডেন্ট। বিমানটি ইলেকট্রো ম্যাগনেটিক পালস থেকে সুরক্ষিত। বিমানটি মোবাইল কম্যান্ড হিসেবে ব্যবহার করা যায়। মাঝ আকাশ থেকে জ্বালানি ভরে নিতে পারে এই বিমান। পাশাপাশি এই বিমান থেকে ‍পুরো এলাকার ওপর নজর রাখা যায়, চালানো যায় প্রশাসনিক কাজ।

আপনার মতামত লিখুন :