নরসিংদীতে গণপরিবহনে ভাড়া নিয়ে নৈরাজ্য, নেই স্বাস্থ্যবিধির বালাই

কবির মাহমুদ(বার্তা বিভাগ)
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  02:31 PM, 24 October 2020

রাব্বি সরকারঃ (নরসিংদী প্রতিনিধি) : নরসিংদীতে গণপরিবহনে আগের ভাড়ায় ফিরলেও করোনাকালের ভাড়া নিয়ে নৈরাজ্য এখনো থামেনি। ভাড়া নিয়ে যাত্রীদের সঙ্গে প্রায়ই হচ্ছে বাকবিতণ্ডা। পরিবহন খাতের বিশৃঙ্খলা নিয়ে চরম ক্ষুব্ধ যাত্রীরা। তারা বলছেন, আগের ভাড়ার কথা মনে করিয়ে না দিলে নিজ ইচ্ছায় আগের ভাড়া নিচ্ছে না পরিবহনগুলো। আর এসব কারণেই বিভিন্ন স্থানে যাত্রীদের সঙ্গে বাকবিতণ্ডা হচ্ছে।

আর করোনা থেকে রক্ষা পেতে যে স্বাস্থ্যবিধি সরকারে নির্দেশনায় রয়েছে তার বালাই নেই কোনো পরিবহনে। যাত্রীদের অধিকাংশের মুখে মাস্কও দেখা যায়নি। নেই হ্যান্ড স্যানিটাইজারের ব্যবহারও।

বৃহস্পতিবার (২২ অক্টোবর) নরসিংদীর কয়েকটি গণপরিবহন ঘুরে দেখা যায়, ভাড়া নিয়ে অনেক বাসে যাত্রীর সঙ্গে বাকবিতণ্ডা হচ্ছে হরহামেশা। অতিরিক্ত ভাড়া দাবি করছে অনেক কন্ডাক্টর।
মাধবদী-ভৈরব হাইওয়ে মিনি বাসের যাত্রী আব্দুস সালাম বলেন, আগের ভাড়ার কথা কন্ডাক্টরদের মনে করিয়ে দিতে হচ্ছে। তা না হলে তারা করোনাকালের জন্য যে ৬০ শতাংশ ভাড়া বাড়ানো হয়েছিল সেই ভাড়াই রেখে দিচ্ছে। আমার থেকেও এমন করা হয়েছে।
ভেলানগরের বাসিন্দা তাছিন আহমেদ বলেন, পাঁচদোনা থেকে ভেলানগর ভাড়া ৫ টাকা, কিন্তু নেয়া হচ্ছে ১০ টাকা। পাঁচদোনা থেকে ইটাখোলা ভাড়া নেয়া হচ্ছে ২৫ থেকে ৩০ টাকাও। কিন্তু কোন স্বাস্থ্যবিধি মানা হচ্ছে না।

যাত্রী ইসমাইল হোসেন বলেন, ভেলানগর থেকে ইটাখোলা ভাড়া ৫ টাকা, করোনাকালীন এখান থেকে ১০ টাকার মতো আদায় করা হতো। কিন্তু এখনও ১০ টাকা নিয়েছে। অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করলেও মানছে না স্বাস্থবিধি।

আপনার মতামত লিখুন :